আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই

দেশে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী নেই * সর্বোচ্চ সতর্কতা রয়েছে

0
661
বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরাম ২০২০-এ বক্তব্য রাখেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালিক

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী নেই। তবে ভাইরাসটির বিষয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালিক করোনা ভাইরাস সম্পর্কে এমনটাই বললেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরাম ২০২০-এর অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য তার বক্তব্যে করোনা ভাইরাস সম্পর্কেও কথা বলেন। রাজধানীর আগারগাঁওয়ে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হচ্ছে বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরাম ২০২০-এর আয়োজন।

স্বাস্থ্য মন্ত্রী জানালেন, এই ভাইরাস আক্রান্ত কোন রোগী এখনও সনাক্ত হয়নি। এই ভাইরাস মোকাবেলায় সরকার প্রস্তুত। সব বিমানবন্দরে স্ক্যানার বসানো হয়েছে। জাহিদ মালিক বললেন, হাসপাতালগুলোতে করোনা ভাইরাস আক্রান্তদের জন্য আইস্যুলেশন ওয়ার্ড করা হয়েছে। জেলা শহরগুলোতেও এই ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী পেলে দ্রুত চিকিৎসা দেয়ার সুবিধার জন্য এখনই এই আইস্যুলেশন ওয়ার্ড খোলা হয়েছে।

চীন থেকে আসা যাত্রীদের বিষয়ে বিশেষ সতর্কতা নেয়া হচ্ছে বলেও জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী। এসব যাত্রীদের বিমানবন্দরেই স্ক্যান করা হচ্ছে। তাদের দিয়ে ফরম পূরণ করানো হচ্ছে এবং তাদের কার্ড রাখা হচ্ছে। চীনে বাংলাদেশ দূতাবাসেও এ বিষয়ে নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে।

মন্ত্রী বললেন, বাংলাদেশের যে সব প্রকল্পে চীনারা কাজ করছেন সেসব স্থানেও নজর রাখা হচ্ছে। সেসব প্রকল্পেও বিশেষ নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। অনেক বছর ধরে আমাদের দেশে কাজ করছেন এমন অনেক চাইনিজ নিজ দেশে গেছেন। তারা আবার ফিরবেন। যারা ফিরছেন তাদের প্রতি আমাদের বিশেষ নজর আছে। এসময় চীনে যেতে বাংলাদেশিদেরও নিরুৎসাহিত করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তবে এ বিষয়ে কোন নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়নি বলেও জানান জাহিদ মালিক।

মন্ত্রী বললেন, এই ভাইরাস যেন আমাদের দেশে না আসে সে প্রত্যাশা করি। তারপরও কোনভাবে চলে এলে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। এই ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের দিক থেকে সব ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।