করোনা: বাংলাদেশের জন্য বিশ্বব্যাংকের ঋণ সহায়তা

৩০ বছরে শোধ করতে হবে ১০০ মিলিয়ন ডলার

0
787

করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ১০০ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক। ঋণ হিসেবে জরুরী সহায়তার প্রথম ধাপ অনুমোদন দিয়েছে ব্যাংকটির নীতি নির্ধারকেরা। পাঁচ বছর গ্রেস দিয়ে ৩০ বছরে এই ঋণ শোধ করতে হবে বাংলাদেশকে।

শনিবার বিশ্বব্যাংকের এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। তবে সংস্থাটি শুক্রবার এ সিদ্ধান্ত নিয়ে বাংলাদেশের জন্য তাদের ফেসবুক পেইজে তথ্যটি প্রথম জানায়।

বিশ্বব্যাংকের বাংলাদেশ ও ভূটানের কান্ট্রি ডিরেক্টর মারসি টেমবন বলেন, বিশ্বব্যাংকের দেয়া ১০০ মিলিয়ন ডলারের ঋণ ব্যবহার করা হবে করোনা ভাইরাস রোগী শনাক্তকরণ, মহামরী প্রতিরোধ, আক্রান্ত হওয়ার কারণ অনুসন্ধান, ডায়াগনোস্টিক ল্যাবরেটরি এবং ব্যক্তিগত সুরক্ষাসামগ্রী ও নতুন আইসোলেশন ওয়ার্ড স্থাপনে।

তিনি বলেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বিশ্বব্যাংক বাংলাদেশ সরকারের সাথে নিবিড়ভাবে কাজ করছে।

টেমবন জানান, এই  প্রকল্পটি করোনা মহামারীর প্রাদুর্ভাব রোধে বাংলাদেশের জাতীয় পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সহায়তা করবে। এছাড়া দেশের স্বাস্থ্যবিধি, ব্যক্তিগত সুরক্ষামূলক সরঞ্জাম, ভেন্টিলেটর ও হাসপাতালে আইসোলেশন ইউনিট স্থাপনে ভূমিকা রাখতে সহায়তা করবে।

বিস্তারিত জানতে:

https://www.worldbank.org/en/news/press-release/2020/04/03/world-bank-fast-tracks-100-million-covid-19-coronavirus-support-for-bangladesh