জিজ্ঞাসাবাদের মুখে ‘বেবি ডল’

0
1773

করোনা ভাইরাস ছাড়লেও আইন ছাড়বে না। কোয়ারেন্টাইন শেষেই মুখোমুখি হতে হচ্ছে জিজ্ঞাসাবাদের। এমন সঙ্কটে পড়েছেন মুম্বাই ফিল্মীপাড়ার বাসিন্দা ‘বেবি ডল’ কণিকা কাপুর। কাণ্ডজ্ঞীনহীন আচরণই তাকে আইনের মুখোমুখি দাঁড় করিয়ে দিয়েছে।

লন্ডন থেকে ফিরে কোয়ারেন্টাইনে না গিয়ে পার্টির আয়োজন করা আর ঘুরে বেড়ানোর দায়ে এই সেলিব্রেটি সঙ্গীত শিল্পীর বিরুদ্ধে দিল্লির সরোজিনী নগর থানায় এফআইআর হয়। এফআইআর দায়ের করেন লক্ষ্ণৌর চিফ মেডিকেল অফিসার নরেন্দ্র কুমার আগারওয়াল।

কণিকার ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইন শেষ হলেই তাকে জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি হতে হবে, জানিয়েছেন লক্ষ্ণৌ পুলিশ সেন্ট্রালের ডেপুটি কমিশনার দীনেশ কুমার সিং। গণমাধ্যমকে পুলিশের এই কর্তা ব্যক্তি জানালেন, দায়িত্বজ্ঞানহীন কাজ ও সরকারি আদেশ অমান্য করে মারাত্মক রোগের সংক্রমণ করে অন্যদের জীবন ঝুঁকির মুখে ফেলার অভিযোগ রয়েছে এই হার্ট থ্রবের বিরুদ্ধে।

হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার আগে সঞ্জয় গান্ধী পোস্টগ্র্যাজুয়েট ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্সেসে চিকিৎসাধীন অবস্থায় পাঁচ বার কণিকার দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি ধরা পরে। ষষ্ঠ দফার পরীক্ষায় করোনা নেগেটিভ এলেই তাকে ছাড়া হয় হাসপাতাল থেকে।

করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে নিজের তিন সন্তানসহ আরও অনেকের সংস্পর্শে যাওয়ায় কণিকার বিরুদ্ধে মোট তিনটি এফআইআর দায়ের করা হয়। করোনার উপসর্গ দরা পড়ার আগে নিয়মিতই সামাজিক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন কণিকা।

শুধু তাই নয়, যেদিন ফিরলেন লন্ডন থেকে, সে রাতে নিজেই আয়োজন করেন জমকালো পার্টির। যেখানে অংশ নেন রাজনীতিক, আমলা থেকে শুরু করে ব্যবসায়ী আর ফিল্মপাড়ার বন্ধুরা।