দেশে মৃতের সংখ্যা আড়াইশ’

0
250

দেশে গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৯৬৯ জন। এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৬ হাজার ৬৬০ জন। গত ২৪ ঘন্টায় ১১ জন করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। এ নিয়ে ২৫০ জন মারা গেছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনা ভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত অনলাইন লাইভ ব্রিফিংয়ে অধিদদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডাক্তার নাসিমা সুলতানা এসব তথ্য জানান।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘন্টায় সুস্থ হয়েছেন ২৪৫ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৩ হাজার ১৪৭ জন।

নাসিমা সুলতানা বলেন, গতকালের চেয়ে আজ ৬৫ জন কম আক্রান্ত হয়েছেন। গতকাল আক্রান্ত হয়েছিলেন ১ হাজার ৩৪ জন।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুবরণকারী ১১ জনের মধ্যে ৭ জন পুরুষ ও ৪ জন নারী। এর মধ্যে ঢাকা মহানগরীতে ৫, নারায়ণগঞ্জে ২, নরসিংদীর ১, চট্টগ্রাম বিভাগে ২ এবং সিলেট বিভাগে ১ জন রয়েছেন। বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, এদের মধ্যে ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৩ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ৫ জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে ২ জন এবং ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে ১ জন রয়েছেন।

ডাক্তার নাসিমা সুলতানা জানান, করোনা ভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ৬ হাজার ৮৪৫টি। আগের দিন নমুনা সংগ্রহ হয়েছিল ৭ হাজার ২৬৭টি। নমুনা সংগ্রহ আগের দিনের চেয়ে ৪২২টি কম। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে নোয়াখালী সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি ইউনিভার্সিটিসহ দেশের ৩৮টি পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৬ হাজার ৭৭৩টি। আগের দিন নমুনা পরীক্ষা হয়েছিল ৭ হাজার ২০৮টি। গতকালের চেয়ে নমুনা পরীক্ষা ৪৩৫টি কম। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১ লাখ ৩৬ হাজার ৬৩৮টি।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাতিষ্ঠানিক ও হোম মিলে কোয়ারেন্টাইন করা হয়েছে ১ হাজার ৬৬৬ জনকে। এখন পর্যন্ত ২ লাখ ২৫ হাজার ৮৪ জনকে কোয়ারেন্টাইন করা হয়েছে। কোয়ারেন্টাইন থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় ছাড় পেয়েছেন ৩ হাজার ৬৫ জন, এখন পর্যন্ত মোট ছাড় পেয়েছেন ১ লাখ ৭৯ হাজার ৬৯৯ জন।

নাসিমা সুলতানা জানান, দেশের বিমানবন্দর, স্থল, নৌ ও সমুদ্রবন্দর দিয়ে গত ২৪ ঘন্টায় ৭১৩ জনসহ সর্বমোট বাংলাদেশে আগত ৬ লাখ ৮৩ হাজার ৭৯৯ জনকে স্কিনিং করা হয়েছে।

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার পরিস্থিতি তুলে ধরে তিনি জানান, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা’র ১১ মে পর্যন্ত রিপোর্ট অনুযায়ী ২৪ ঘন্টায় দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ৫৬৭ জন। এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৮৮১ জন। ২৪ ঘন্টায় মারা গেছেন ১২৫ জন এবং এ পর্যন্ত ৩ হাজার ৪৮১ জন।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা’র ১১ মে পর্যন্ত রিপোর্ট অনুযায়ী সারাবিশ্বে ২৪ ঘন্টায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮৮ হাজার ৮৯১ জন। এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৪০ লাখ ৬ হাজার ২৫৭ জন। ২৪ ঘন্টায় মারা গেছেন ৪ হাজার ৫৩১ জন এবং এ পর্যন্ত ২ লাখ ৭৮ হাজার ৮৯৩ জন।